২৮৭ বাংলাদেশি বিশেষ ফ্লাইটে ইতালি ফিরেছেন

0
208
২৮৭ বাংলাদেশি বিশেষ ফ্লাইটে ইতালি ফিরেছেন
২৮৭ বাংলাদেশি বিশেষ ফ্লাইটে ইতালি ফিরেছেন

বাংলাদেশ বিমানের বিশেষ ফ্লাইটে ইতালি ফিরেছেন দেশে আটকে পড়া ২৮৭ প্রবাসী বাংলাদেশি। গতকাল শুক্রবার ইতালির স্থানীয় সময় বিকেল ৫টা ২০ মিনিটে রোমের ইন্টারন্যাশনাল ফিমিউসিনো বিমানবন্দরে পৌঁছান প্রবাসী বাংলাদেশিরা।

তার আগে শুক্রবার বেলা সোয়া ১২টায় ২৮৭ জন যাত্রী নিয়ে ইতালির উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করে বাংলাদেশ বিমানের বিশেষ ফ্লাইট।

ফিমিউসিনো এয়ারপোর্টে প্রবাসী বাংলাদেশিদের সঙ্গে কুশল বিনিময় করেন ইতালিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান সিকদার। এ ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন জালালাবাদ অ্যাসোসিয়েশন, ইতালির সভাপতি অলি উদ্দিন শামীম, সাধারণ সম্পাদক ছাব্বির আহমেদসহ বাংলাদেশি কমিউনিটির নেতৃবৃন্দ।

ফিরে যাওয়া প্রবাসীদের সঙ্গে কুশল বিনিময় করেন বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান সিকদার। ছবি : আমাদের সময় 

করোনাভাইরাস সচেতনতায় ইতালির প্রশাসনের নিয়ম অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনে ফিরে যাওয়া বাংলাদেশিদের ১৪ দিন কোয়ারেন্টিনে থাকার নির্দেশ প্রদান করেন রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান ।

ইতালিতে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয় ফেব্রুয়ারির শেষ সপ্তাহে। মার্চের শুরুতেই আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যায় বিপর্যস্ত হয়ে পড়ে দেশটি। করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাওয়ায় জরুরি অবস্থা জারি করে পুরো দেশকে লকডাউন ঘোষণা করে সরকার। জরুরি সেবাদান প্রতিষ্ঠান চালু রেখে বন্ধ করে দেওয়া হয় সব কিছু।

করোনা ঠেকাতে ইউরোপীয় ইউনিয়নের দেশ ও বিশ্বের অন্যান্য দেশগুলোর সঙ্গেও যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়। বন্ধ করা হয় বিমানবন্দর।

বাংলাদেশ থেকে ইতালিতে ফিরে যাওয়াদের একাংশ। ছবি : আমাদের সময়

দীর্ঘ দুই মাসের অধিক সময় করোনা তাণ্ডবের পর স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে ইতালির জনজীবন। চালু হয়েছে সকল প্রকার ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, অফিস-আদালত, রেস্টুরেন্ট, রেস্তোরাঁ ,বার, দোকান-পাট।

ইতালির সিভিল প্রোটেকশন এজেন্সির তথ্য হালনাগাদ পরিসংখ্যান অনুযায়ী, এখন পর্যন্ত দেশটিতে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ২ লাখ ৩৬ হাজার ৩০৫ জন। আর মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩৪ হাজার ২২৩ জনে। ইতালিতে করোনা থেকে সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছাড়ার সংখ্যা ১ লাখ ৭৩ হাজার ৮৫ জন।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY