উপজেলা হেফাজতের আমির দুই ভাইসহ গ্রেফতার

0
80

গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার হেফাজতে ইসলামের আমির ও তার দুই ভাইকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃতরা হলেন, কালিয়াকৈর উপজেলা হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমির ও কালিয়াকৈর উপজেলা ওলামা পরিষদের সভাপতি মুফতি মাওলানা এমদাদুল্লাহ ওরফে এমদাদুল হক (৫০) ও তার অপর দুই ভাই কালিয়াকৈরের চন্দ্রা দারুল উলুম মাহমুদ নগর মাদরাসার আরবি বিভাগের সহকারী শিক্ষক আশরাফুল ইসলাম (৪০) ও অপর ভাই মোহাম্মদ আলী (৪৮)।

তারা জেলার কালিয়াকৈর উপজেলার ডাইনকিনি এলাকার হাজী সিরাজুল ইসলামের ছেলে। গ্রেফতারকৃত মাওলানা এমদাদুল্লাহ চন্দ্রা দারুল উলুম মাহমুদ নগর মাদরাসার প্রিন্সিপাল।

সোমবার দুপুরে গাজীপুর পুলিশ সুপারের কার্যালয় থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।
পুলিশ জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারে হেফাজতের কেন্দ্রীয় যুগ্ম-মহাসচিব মামুনুল হককে গ্রেফতারের প্রতিবাদে কিছু দুষ্কৃতিকারী কালিয়াকৈরের চন্দ্রা-কালামপুরগামী সড়কের চন্দ্রা সিএনজি স্টেশন এলাকায় ধ্বংসাত্মক কার্যক্রম ও অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটাতে পারে। এমন গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে জেলা পুলিশের একটি দল রবিবার দিবাগত রাত সোয়া ১২টার দিকে কালামপুর এলাকায় পৌঁছলে ৩৫/৪০ জন দুষ্কৃতিকারী অতর্কিতে পুলিশকে লক্ষ্য করে কয়েকটি ককটেল নিক্ষেপ করলে তা বিস্ফোরণে ৩ পুলিশ সদস্য আহত হন। এসময় পুলিশও দুষ্কৃতিকারীদের লক্ষ্য করে কয়েক রাউন্ড শর্টগানের গুলি ছোড়ে। তখন দুষ্কৃতিকারীরা পালিয়ে যাওয়ার সময় ঘটনাস্থল থেকে তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়। পালিয়ে যাওয়া অন্যান্য দুষ্কৃতিকারীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। আহত ৩ পুলিশ সদস্যকে কালিয়াকৈর উপজেলা হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

এ ব্যাপারে সোমবার কালিয়াকৈর থানার এসআই মোর্শেদ আলী মোল্লা বাদী হয়ে বিস্ফোরক দ্রব্য আইন ও সরকারি কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগে মামলা দায়ের করেছেন। ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

 

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY