রাবিতে প্রেমবঞ্চিতদের বিক্ষোভ-সমাবেশ

0
330
রাবিতে প্রেমবঞ্চিতদের বিক্ষোভ-সমাবেশ
রাবিতে প্রেমবঞ্চিতদের বিক্ষোভ-সমাবেশ

আজ ১৪ ফেব্রুয়ারি, ভ্যালেন্টাইনস ডে বা ভালোবাসা দিবস। ভালোবাসা দিবস ও বসন্ত বরণ উৎসবে যখন মেতেছে সারাদেশ। প্রিয়জনের প্রতি ভালোবাসা প্রকাশে যখন ব্যস্ত সারাবিশ্ব। ঠিক তখনই রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) বিক্ষোভ-সমাবেশ করেছে ‘প্রেম বঞ্চিত সংঘ’।

রোববার (১৪ ফেব্রুয়ারি) বেলা ১১টায় রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) পরিবহন চত্বরের আমতলা থেকে একদল তরুণ বিক্ষোভ মিছিল শুরু করে। পরে সমাবেশের মাধ্যমে তা শেষ হয়।

সবার কণ্ঠে স্লোগান, কেউ পাবে, কেউ পাবে না, তা হবে না, তা হবে না, প্রেমের নামে প্রহসন বন্ধ কর, তুমি কে, আমি কে, বঞ্চিত বঞ্চিত, যোগ্য মানুষ হারালে, কাঁদতে হবে আড়ালে।

সমাবেশে প্রেম বঞ্চিত সংঘের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আহমেদ জনি বলেন, ‘প্রেম পৃথিবীর দ্বিতীয় সূর্য। প্রেম একটি পবিত্র সম্পর্ক। প্রেমের পবিত্রতা রক্ষায় আমাদের মূল উদ্দেশ্য। কিন্তু তরুণ-তরুণীরা পবিত্র ভাবনা থেকে বিচ্যূত হয়ে যাচ্ছে। প্রেম হলো দুটি মনের মিল। প্রেমের ভাষা হবে চোখে-চোখে। কিন্তু বর্তমানে এর বিপরীত অবস্থা দেখতে পাচ্ছি। আমরা এসব নেতিবাচক বিষয়ের বিরুদ্ধে দাঁড়িয়েছি।’

তিনি আরও বলেন, ‘কিছু তরুণ-তরুণী ও যুবক-যুবতী একইসঙ্গে তিন-চারটি প্রেম করছেন। প্রেমের ফাঁদে ফেলে একে অপরকে ধোঁকা দিচ্ছেন। তবু তারা বুঝতে পারছেন না। কিন্তু সত্যিকার প্রেমিক হিসেবে আমরা পছন্দের মেয়েদের প্রেমের পয়গাম নিয়ে গেলে কোনো কিছু না ভেবে, না বুঝেই মেয়েরা প্রত্যাখ্যান করে দিচ্ছে। তারা পুঁজিবাদী প্রেমের পেছনে ছুটছে। ভালোবাসার মানুষের হৃদয়ের আবেগের মূল্য দিতে তারা একটু কালক্ষেপণ করছেন না।’

বিক্ষোভ মিছিলটি বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবহন চত্বর থেকে শুরু হয়ে ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ শেষে আবারো পরিবহন চত্বরের আমতলায় এসে শেষ হয়। পরে সেখানে তারা এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশে অংশ নেন।

সমাবেশ শেষে সংগঠনের সদস্যরা গণস্বাক্ষর কর্মসূচী পালন করেন এবং দুপুরে দরিদ্র-অসহায়দের আহারের আয়োজন করেন।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY