গাম্বিয়াকে অর্থ দিতে কানাডার প্রতি আহ্বান

0
114

আন্তর্জাতিক বিচার আদালতে (আইসিজে) মিয়ানমারের বিরুদ্ধে রোহিঙ্গা গণহত্যা মামলার কার্যক্রম পরিচালনায় গাম্বিয়াকে আর্থিক সহায়তা দিতে কানাডার প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

দুই দেশের মধ্যে কূটনৈতিক সম্পর্ক প্রতিষ্ঠার ৫০তম বার্ষিকী উপলক্ষে সোমবার কানাডার আন্তর্জাতিক উন্নয়ন মন্ত্রী হারজিত সজ্জনের সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠকে মন্ত্রী এই মন্তব্য করেন।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে একথা জানানো হয়।

ড. মোমেন এই বৈঠকে রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে নেতৃত্বের ভূমিকা নেওয়ার জন্য কানাডার প্রতি আহ্বান জানান। আশঙ্কা রয়েছে যে, এখানে রোহিঙ্গাদের দীর্ঘায়িত অবস্থান শিবিরগুলোতে চরমপন্থা ও সন্ত্রাসবাদের সম্ভাব্য উত্থানের ফলে বিশাল নিরাপত্তা হুমকি ও আঞ্চলিক অস্থিতিশীলতার কারণ হতে পারে।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বাস্ত্যুচ্যুত ও নির্যাতিত রোহিঙ্গাদের জন্য অব্যাহত রাজনৈতিক ও মানবিক সহায়তা দেওয়ার পাশাপাশি আইসিজেতে চলমান গণহত্যা মামলার জন্য সহায়তা প্রদান করায় কানাডাকে ধন্যবাদ জানান।

ড. মোমেন বাংলাদেশের দৃঢ় প্রত্যাশা পুনর্ব্যক্ত করেন যে, কানাডা ন্যায়বিচার ও আইনের শাসন নিশ্চিত করতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের দণ্ডপ্রাপ্ত খুনি নূর চৌধুরীকে ফিরিয়ে দেবে।

এছাড়া বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের ৫০ বছর উদযাপনের প্রেক্ষাপটে দুই দেশের মধ্যে সরকার প্রধান পর্যায়ের সফরের প্রয়োজনীয়তার ওপর গুরুত্বারোপ করেন।

বাংলাদেশে আরও কানাডিয়ান বিনিয়োগের আহ্বান জানিয়ে ড. মোমেন কানাডার সঙ্গে একটি মুক্ত বা অগ্রাধিকারমূলক বাণিজ্য চুক্তি (এফটিএ বা পিটিএ) করার বিষয়ে বাংলাদেশের ইচ্ছা পুনর্ব্যক্ত করেন। তিনি ঢাকা ও টরন্টোর মধ্যে সরাসরি ফ্লাইট চালুর অগ্রগতি নিয়েও সন্তোষ প্রকাশ করেন।

কানাডায় অধ্যয়নরত বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের সংখ্যা বাড়ছে উল্লেখ করে তিনি বাংলাদেশকে স্টুডেন্ট ডাইরেক্ট স্ট্রিম (এসডিএস) প্রোগ্রামে অন্তর্ভুক্ত করার অনুরোধ জানান।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY