খারকিভে রুশ হামলায় ২১ জনের মৃত্যু

0
124
খারকিভে রুশ হামলায় ২১ জনের মৃত্যু

ইউক্রেনের দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর খারকিভে রুশ হামলায় অন্তত ২১জন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে ১১২ জন। শহরটির মেয়রের বরাত দিয়ে এই খবর প্রকাশ করেছে বিবিসি ও আলজাজিরা।

মঙ্গলবার রাতে এবং বুধবারও এই অঞ্চলে হামলার খবর পাওয়া গেছে। খারকিভের আঞ্চলিক প্রশাসক ওলে সিনেগোভব দাবি করেছেন, খারকিভে হামলার পর প্রতিরোধের কবলে পড়েছেন রুশ সেনারা। তারাও ব্যাপক ক্ষতির শিকার হয়েছে।

এদিকে ইউক্রেনের উত্তর-পূর্ব শহর খারকিভে রাশিয়ান প্যারাট্রুপাররা অবতরণ করে সেখানে একটি সামরিক হাসপাতালে হামলা করেছেন।

মঙ্গলবার ইউক্রেনের দ্বিতীয় বৃহত্তম শহরটির স্থানীয় সরকার সদর দপ্তরে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায়। এ দিন পরবর্তীতে খারকিভের একটি আবাসিক এলাকায় আরেকটি হামলা চালানো হয়। ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি পরে এই হামলাকে ‘যুদ্ধাপরাধ’ বলে অভিহিত করেন।

মঙ্গলবার খারকিভে কমপক্ষে ১৭ জন নিহত এবং বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন বলে দেশটির কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

বিবিসি জানায়, রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে রাশিয়ার সৈন্যরা ইউক্রেনের দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর খেরসন দখল নিয়ে পূর্ণ কর্তৃত্ব স্থাপন করেছে।

রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র মেজর জেনারেল ইগর কোনাশেনকভের বরাত দিয়ে দেশটির রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম তাসের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

কোনাশেনকভের বরাত দিয়ে তাস আরও জানায়, শহরের বেসামরিক অবকাঠামো, জরুরি পরিষেবা এবং নগর পরিবহন ব্যবস্থা স্বাভাবিক রয়েছে।

তবে রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের এ দাবি যাচাই করতে পারেনি সিএনএন।

এদিকে, খেরসন শহরের মেয়র জানিয়েছেন, শহরের প্রধান ট্রেন স্টেশন এবং বন্দর দখল করা হয়েছে।

ইউক্রেনের আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ শহর খারকিভের পুলিশ বিভাগের একটি ভবনে রকেট হামলা করেছে রাশিয়া।

ইউক্রেন সরকারের একজন উপদেষ্টা টেলিগ্রামে একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন। সেখানে দেখা যায়, পুলিশ বিভাগের সে ভবনে আগুন জ্বলছে।

তবে বিবিসি সে ভিডিওর সত্যতা যাচাই করতে পারেনি।

উল্লেখ্য, রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট পুতিন গত বৃহস্পতিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) সামরিক অভিযান ঘোষণার কয়েক মিনিট পরেই ইউক্রেনে বোমা ও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা শুরু করে রুশ সেনারা। এরপর থেকে ইউক্রেন ও রাশিয়ার মধ্যে যুদ্ধ চলছে। যুদ্ধে এখন পর্যন্ত ইউক্রেনের ৩৫২ বেসামরিক নাগরিক নিহত এবং এক হাজার ৬৮৪ জন আহত হয়েছেন। এ ছাড়া প্রচণ্ড লড়াইয়ের ছয় দিনে রাশিয়ার ছয় হাজার সৈন্য নিহত হয়েছে বলে দাবি করেছেন ইউক্রেন কর্তৃপক্ষ।
সূত্র : বিবিসি, সিএনএন

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY