রাশিয়ার তেলের ডিপোতে ইউক্রেনের হামলা, বিস্ফোরণ-অগ্নিকাণ্ড

0
140
রাশিয়ার তেলের ডিপোতে ইউক্রেনের হামলা, বিস্ফোরণ-অগ্নিকাণ্ড

ইউক্রেনের সীমান্তবর্তী রাশিয়ার একটি তেলের ডিপোতে হামলা চালিয়েছে ইউক্রেন। শুক্রবার (১ এপ্রিল) সকালে সীমান্তের বেলগরোদ শহরের ওই ডিপোতে হেলিকপ্টার হামলা চালায় ইউক্রেনীয় বাহিনী। হামলায় ডিপোতে বিস্ফোরণ ও অগ্নিকাণ্ড ঘটে। এ ঘটনায় দুইজন আহত হয়েছে। বেলগরোদ শহরের গভর্নর ভ্যাচেস্লাভ গ্ল্যাডকভ হামলার তথ্য নিশ্চিত করেছেন। খবর সিএনএন ও বিবিসির।

গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে সামরিক অভিযান শুরু করার পর রাশিয়ার মাটিতে এটা ইউক্রেনের দ্বিতীয় হেলিকপ্টার হামলা। এর আগে চলতি সপ্তাহেই রাশিয়ার একটি অস্ত্রাগারে হামলা চালায় ইউক্রেন। তবে এসব ঘটনার দায় স্বীকার বা কোনো মন্তব্য করেনি ইউক্রেন।

বেলগরোদ ইউক্রেন ও রাশিয়ার সীমান্ত থেকে প্রায় ৪০ কিলোমিটার দূরে এবং ইউক্রেনীয় শহর খারকিভ থেকে প্রায় ৮০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত। আর যে ডিপোতে আগুন লেগেছে তা সীমান্ত থেকে তার দূরত্ব মাত্র ৩৫ কিলোমিটার।

খবরে বলা হয়েছে, স্থানীয় সময় ভোর ৬টার দিকে এ আগুন লাগে। টুইটারে ছড়িয়ে পড়া ফটো ও ভিডিওতে দেখা গেছে, শহরের একটি আবাসিক এলাকার কাছেই দাউ দাউ করে আগুন জ্বলছে।

বেলগরোদ শহরের গভর্নর ভ্যাচেস্লাভ গ্ল্যাডকভ জানান, এদিন সকালে ইউক্রেনের দুটি হেলিকপ্টার থেকে তেল ডিপোতে হামলা করা হয়। এ ঘটনায় সেখানে আগুন লাগে। আহত হন দুজন। তবে তা গুরুতর কিছু নয়। দমকল বাহিনী সেখানে কাজ করছে। আশপাশের মানুষকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।

ইউক্রেনের লুহানস্ক ও দোনেৎস্ক অঞ্চলকে গত ২১ ফেব্রুয়ারি আলাদা স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দেয় রাশিয়া। এরপর ওই অঞ্চলে শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্য ২৪ ফেব্রুয়ারি থেকে ইউক্রেনে সামরিক অভিযান শুরু করে রুশ বাহিনী।

শুক্রবার ৩৭তম দিনে গড়িয়েছে এই অভিযান। এ সময়ে ইউক্রেনের বেশ কয়েকটি নগরী দখলে নিয়েছে রুশ বাহিনী। তবে নিজেদের সক্ষমতা অনুযায়ী প্রতিরোধ গড়ে তোলার চেষ্টাও করে যাচ্ছে ইউক্রেন। এ যুদ্ধের ফলে ইউক্রেন থেকে প্রায় ৪০ লাখ লোক দেশ ছেড়ে পালিয়েছেন।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY