নিজ কর্মস্থলে আনসার সদস্যকে জবাই করে হত্যা

0
102
নিজ কর্মস্থলে আনসার সদস্যকে জবাই করে হত্যা

মানিকগঞ্জে এক আনসার সদস্যকে জবাই করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে ঘিওর আনসার ক্যাম্পের এক নাইটগার্ডের বিরুদ্ধে। শনিবার (২৩ জুলাই) ভোরে এ হত্যাকাণ্ড ঘটে।

নিহত আনসার সদস্যের নাম আব্দুল কুদ্দুস। অভিযুক্ত নাইটগার্ডের নাম শাহিন।

পুলিশ জানায়, দীর্ঘদিন ধরে শাহিনের সঙ্গে ৪০ হাজার পাওনা টাকা নিয়ে বিরোধ ছিল তাদের। শনিবার ভোরের দিকে বাগ্‌বিতণ্ডার একপর্যায়ে বঁটি দিয়ে জবাই করে কুদ্দুসকে হত্যা করে শাহিন। ভোরে কুদ্দুসের ক্ষতবিক্ষত মরদেহ বস্তায় ভরে ঘিওর আনসার অফিসের সামনে আনলে আশপাশের মানুষ টের পায়। এ সময় বস্তাবন্দি মরদেহ ফেলে পালানোর চেষ্টা করলে জনতা তাকে ধরে পুলিশে দেয়। পরে পুলিশ এসে মরদেহ উদ্ধার করে মানিকগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

জেলা আনসার কমান্ড্যান্ট মো. এফতেখারুল ইসলাম বলেন, উপজেলা আনসার কার্যালয়ে এমন ঘটনা ঘটায় আমরা বিব্রত। আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. হামিদুর রহমান জানান, সামাজিক অবক্ষয় থেকে খুনের ঘটনা বাড়ায় উদ্বিগ্ন উপজেলা প্রশাসনও। তিনি বলেন, আমরা জনসাধারণকে সচেতন করার চেষ্টাসহ আইনশৃঙ্খলা বিষয়ে কাজ করব।

ঘিওর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বলেন, এ নিয়ে সামাজিকভাবে সবাইকে বোঝানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। আমরা প্রতিটি মসজিদসহ সব প্রতিষ্ঠান ও জনসাধারণকে বলেছি, ছোট ঘটনা যেন বড় না হয়।

শিবালয় সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার নূর-জাহান লাবনী জানান, অভিযুক্ত আনসার সদস্যকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। এ ছাড়াও আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণে কাজ করছে পুলিশ।

তিনি আরও জানান, কুদ্দুস ২০১৪ সালের ৪ জানুয়ারি আনসারে অস্থায়ীভাবে যোগদান করেন। দীর্ঘ আট বছর পর ২০২২ সালের ২২ জুন চাকরি স্থায়ী হয়। কুদ্দুসের সাত বছরের এক প্রতিবন্ধী ছেলেসহ ১৪ বছরের আরও এক ছেলে রয়েছে।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY