সরকার ভূমি সেবা তথ্য উন্মুক্ত করার উদ্যোগ নিয়েছে

0
58
সরকার ভূমি সেবা তথ্য উন্মুক্ত করার উদ্যোগ নিয়েছে

ডিজিটাল ভূমি সেবাকে স্মার্ট ভূমিসেবায় রূপান্তর করার প্রক্রিয়া শুরু করেছে ভূমি মন্ত্রণালয়। সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশ থেকে স্মার্ট বাংলাদেশে রূপান্তরের সার্বিক পরিকল্পনার অংশ হিসেবে ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরীর নির্দেশে এ পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে ভূমি মন্ত্রণালয়।

ভূমি সচিব মো. মোস্তাফিজুর রহমানের তত্ত্বাবধানে ডিজিটাল ও স্মার্ট ভূমি সেবা স্থাপন কার্যক্রমে পরীক্ষামূলকভাবে প্রথমে ই-নামজারি সিস্টেম স্মার্ট করার পরিকল্পনা হাতে নেয়া হয়েছে। এর অংশ হিসেবে প্রশ্নভিত্তিক গাইডেড স্মার্ট ই-নামজারি ফরম ডিজাইন করা হয়েছে।

এছাড়া অনলাইনে নামজারি আবেদনের সময় সরকারের সার্ভারে রক্ষিত প্রযোজ্য ডাটা (উপাত্ত) ও ফাইল আপলোড হয়ে যাবার ব্যবস্থা করা হয়েছে। ফলে আবেদনকারী ই-নামজারি ফরম আরও দ্রুত সময়ে সহজে পূরণ করতে পারবেন। আপডেটকৃত সিস্টেমে প্রতিষ্ঠান ব্যক্তি মালিকানাধীন জমির জন্য আলাদা আলাদা নামজারি ফরম থাকছে। এছাড়া ক্রয় সূত্রে হস্তান্তরকৃত জমি নামজারি আবেদন নির্ভুলভাবে পূরণের সুবিধার্থে ফরম আপডেট করা হয়েছে। এই স্মার্ট ব্যবস্থা এ মাসের মধ্যেই পুরোপুরি চালু করা হবে।

ভূমি প্রশাসনে সুশাসন নিশ্চিত করা এবং ভূমি সেবা অধিকতর গণমুখী করার জন্য ভূমি সেবা সম্পর্কিত প্রযোজ্য সরকারি তথ্য উন্মুক্ত করারও উদ্যোগ গ্রহণ করেছে ভূমি মন্ত্রণালয়। ভূমি বিষয়ক প্রযোজ্য সরকারি তথ্য ও ডাটা সবার কাছে উন্মুক্ত-করণের মাধ্যমে ভূমি প্রশাসনে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিত হবে এবং তৈরি হবে মান সৃষ্টির সুযোগ। এ ক্ষেত্রেও ই-নামজারিকেই প্রথমে বাছাই করা হয়েছে। ভবিষ্যতে প্রয়োজনে আরও ডাটা উন্মুক্ত করা হবে। তবে জাতীয় এবং ব্যক্তি নিরাপত্তা হুমকির সম্মুখীন হয় এমন তথ্য কিংবা ডাটা কখনো উন্মুক্ত করা হবে না।

প্রসঙ্গত, জাতীয় ভূমি সেবা কাঠামো www.land.gov.bd গিয়ে ই-নামজারি ট্যাবে ক্লিক করলেই বিগত ৯০ দিনের জাতীয়, বিভাগ ও জেলাওয়ারি ই-নামজারি আবেদনের সংখ্যা, মঞ্জুরের হার ও গড় নিষ্পত্তি দেখা যাবে। এছাড়া নিজ আবেদনের সবশেষ অবস্থা দেখার সুযোগ রেয়েছে। ইতঃপূর্বে ভূমি মন্ত্রণালয় ই-নামজারি ব্যবস্থার জন্য মর্যাদাপূর্ণ ‘ইউনাইটেড ন্যাশনস পাবলিক সার্ভিস অ্যাওয়ার্ড – ২০২০’ অর্জন করেছে।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY